ঢাকা: ২০১৯-০২-২১ ২২:৪৭

Khan Brothers Group

পশ্চিম জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী স্বীকৃতি অস্ট্রেলিয়ার

এশিয়ানমেইল২৪.কম

প্রকাশিত : ১০:৩৩ এএম, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮ শনিবার | আপডেট: ১০:৪৩ এএম, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮ শনিবার

ছবি: ইন্টারনেট

ছবি: ইন্টারনেট


ডেস্ক রিপোর্ট : অস্ট্রেলিয়া সরকার পশ্চিম জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেবে জানিয়েছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন। একইসঙ্গে তার দেশ ফিলিস্তিনের রাজধানী হিসেবে পূর্ব জেরুজালেমকে স্বীকৃতি দেবে বলে জানান তিনি।  খবর বিবিসির।

অস্ট্রেলিয়ার রাজনীতিক ও বিদেশি মিত্রদের সঙ্গে সঙ্গে আলোচনার পর স্কট মরিসন তার আগের অবস্থান থেকে সরে এলেন। এর আগে তিনি অখণ্ড জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেয়ার কথা বলেছিলেন।

তবে শান্তি প্রতিষ্ঠিত হওয়ার আগ পর্যন্ত তেল আবিব থেকে অস্ট্রেলিয়ার দূতাবাস সরিয়ে নেয়া হবে না বলেও জানিয়েছেন স্কট মরিসন। দুই রাষ্ট্রের যে সমাধান সূত্র সেখানে পশ্চিম জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী এবং পূর্ব জেরুজালেমকে ফিলিস্তিনের রাজধানী করার কথা বলা হয়েছে।

শনিবার সিডনিতে জেরুজালেমের ব্যাপারে তার সরকারে নতুন ঘোষণার ব্যাপারে মরিসন বলেন, যেহেতু সেখানে নেসেটের আসন এবং বিভিন্ন সরকারি প্রতিষ্ঠান রয়েছে, তাই পশ্চিম জেরুজালেমকে এখন থেকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দিচ্ছে অস্ট্রেলিয়া।

তিনি বলেন, কার্যকর এবং চূড়ান্ত অবস্থা নির্ধারিত হওয়ার পর পশ্চিম জেরুজালেমে আমাদের দূতাবাস সরিয়ে নেয়ার দিকে আমরা তাকিয়ে আছি।

ইসরায়েল ও ফিলিস্তিনের মধ্যে দ্বন্দ্বের অন্যতম একটি ইস্যু হলো এই জেরুজালেম। গত বছরের ডিসেম্বর মাসে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কয়েক দশকের মার্কিন নীতির বাইরে গিয়ে জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেন। পরে চলতি বছরের মে মাসে ইসরায়েলে মার্কিন দূতাবাস তেল আবিব থেকে জেরুজালেমে স্থানান্তর করা হয়।

যুক্তরাষ্ট্রকে অনুসরণ করে গুয়েতেমালা ও প্যারাগুয়েও অখণ্ড জেরুজালেমকে ইসরায়েলের রাজধানী হিসেবে স্বীকৃতি দেয়। তবে প্যারাগুয়েতে সরকার পরিবর্তন হলে তারা তাদের এই সিদ্ধান্ত প্রত্যাহার করে নেয়।

উল্লেখ্য, জেরুজালেমের অধিকার বিশ্বের সবচেয়ে বিরোধপূর্ণ ইস্যুর একটি। ইসরায়েল সমগ্র জেরুজালেমকে নিজেদের অধিকারভুক্ত বলে দাবি করে। কিন্তু জাতিসংঘসহ আন্তর্জাতিক সম্প্রদায় তাদের এ দাবি স্বীকার করে না।

জাতিসংঘের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী পূর্ব জেরুজালেম, যেখানে আল-আকসা মসজিদসহ বৃহত্তম হারাম শরিফ অবস্থিত। ইসরায়েল ১৯৬৭ সালের পর থেকে তা অবৈধভাবে দখল করে রেখেছে।

পুরো জেরুজালেমকেই নিজেদের ‘শাশ্বত ও অখণ্ড’ রাজধানী বলে বিবেচনা করে ইসরায়েল। আর ফিলিস্তিনিরা তাদের ভবিষ্যৎ রাষ্ট্রের রাজধানী হিসেবে পূর্ব জেরুজালেম দাবি করে।

-জেডসি